DMCA.com Protection Status
ADS

নির্দোষ সাকা চৌধুরীকে বাঁচাতে পাকিস্তানের সাবেক রেলমন্ত্রীর নয়া উদ্যোগ(ভিডিও)

sakapakক্যাপ্টেন(অবঃ)মারুফ রাজুঃ  মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে মৃত্যুদন্ড প্রাপ্ত আসামি বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর বিচারে নিরপেক্ষতা নিশ্চিতের জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সহায়তা চেয়েছেন পাকিস্তানের সাবেক রেলমন্ত্রী ইশাক খান খাকওয়ানি।

পাকিস্তানের গণমাধ্যম দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন জানিয়েছে, খাকওয়ানি ইসলামাবাদে আন্তর্জাতিক কূটনৈতিক কোরের ডিন এইচ ই রুডোলফো সারাভিয়াকে লেখা এক চিঠিতে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর বিচারে নিরপেক্ষতার নিশ্চিতের দাবিতে ইসলামাবাদে বিদেশি মিশনগুলোর সহায়তা কামনা করেন।

চিঠিতে খাকওয়ানি ইসলামাবাদে আন্তর্জাতিক যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালকে সকল প্রমাণ গ্রহণ এবং পাকিস্তানি সাক্ষীদের এফিডেভিট রেকর্ডে নিয়ে তাদেরকে সাক্ষ্য হিসেবে মামলায় অন্তর্ভুক্ত করার আবেদন করেন।

খাকওয়ানি তার চিঠিতে উল্লেখ করেন, বাংলাদেশের শীর্ষ আদালতে সাক্ষ্য দিতে চেয়ে এফিডেভিট পাঠানোর দ্বিতীয়বার প্রচেষ্টাকালে দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় তাদেরকে তা জমা দিতে না দিয়ে ঢাকায় পাকিস্তান দূতাবাস অফিসে পাঠিয়ে দেয়।

তিনি বলেন, ‘সবচেয়ে দুঃখজনক বিষয় হচ্ছে আমরা একটি ভিডিওসহ আমাদের এফিডেভিট পাঠানোর পর বাংলাদেশ সরকার তা গ্রহণ করে। কিন্তু তার পরে তারা আমাদের জন্য বাংলাদেশের সব প্রবেশপথ বন্ধ করে দিতে ইমিগ্রেশনকে আদেশ দেয়।’

তিনি আরও বলেন, ‘বাংলাদেশ সরকারের এ ধরনের কাজ আতঙ্কজনক এবং মানবাধিকারের স্পষ্ট লঙ্ঘন। ন্যায় বিচার পাওয়া প্রত্যেকের অধিকার। সাক্ষ্য গ্রহণ কিংবা বর্জন সম্পূর্ণ আদালতের অধিকার। তারা যা করেছে তা ন্যায় বিচারের সম্পূর্ণ পরিপন্থী।’

এর আগে সাক্ষী হিসেবে পাকিস্তানি ৫ বিশিষ্ট নাগরিকসহ মোট ৮ জনের নামের তালিকা জমা দেয় সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী। পাকিস্তানের  ৫ বিশিষ্ট নাগরিকের মধ্যে রয়েছেন, দেশটির তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মদ মিয়া সুমরু , সাবেক রেলমন্ত্রী ইশাক খান খাকওয়ানি, মুনিব আরজুমান্দ খান , আম্বর হারুন সায়গল এবং রিয়াজ আহমেদ ।

এরা সবাই ইতিমধ্যেই বিবৃতি দিয়ে গনমাধ্যমকে বলেছেন ১৯৭১ সালের এপ্রিল থেকে অক্টোবর সময়কালে জনাব সালাউদ্দীন কাদের চৌধুরী তৎকালীন পশ্চিম পাকিস্তানে তাদের সাহচর্যে ছিলেন,এমতাবস্থায় যে কথিত হত্যার অভিযোগে তাকে মৃত্যুদন্ড দেয়া হয়েছে তার সময়কালও এই কয়েক মাসের অন্তর্ভুক্ত । সুতরাং তিনি সম্পূর্ন নির্দোষ এবং রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রনোদিত ভাবে তাকে এই সর্বোচ্চ সাজা দেয়া হয়েছে ।

দেখুন এপ্রসঙ্গে জনাব খাকওয়ানী সাহেবের এফিডেবিট কৃত ভিডিও জবানবন্দী যা কিনা বাংলাদেশ সরকারের কাছে ন্যায় বিচারে সহায়তার জন্য উপস্থাপন করা হয়েছেঃ

নীচের লিংকটিতে ক্লিক করুনঃ

https://video-lga3-1.xx.fbcdn.net/hvideo-xaf1/v/t42.1790-2

 

Share this post

scroll to top
error: Content is protected !!