DMCA.com Protection Status
ADS

মেসির লক্ষ্য সবকটি শিরোপা

image_115642বার্সেলোনা সব প্রতিযোগিতায় সাফল্যের জন্য মুখিয়ে আছে। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের খেলায় ম্যানচেষ্টার সিটির বিরুদ্ধে জয়ের পর টানা সপ্তম বছরের মতো স্পানিশ ক্লাবটির শেষ আটে খেলা নিশ্চিত হওয়ার পর মেসি তার এ অভিপ্রায়ের কথা জানান।

মেসি জানান স্পানিশ চ্যাম্পিয়নরা আবার তাদের সেরা ফর্মে ফেরার আভাস রাখছে। ক্লাবের ওয়েবসাইটে ২৬ বছর বয়সী মেসি বলেন,'আমরা আবারো সেই বার্সায় রুপান্তরিত হয়েছি যা আমরা চাই। লা লিগা হারিয়ে যায়নি। কারণ এখনো অনেকগুলো খেলা আছে।' বার্সেলোনা অধিনায়ক জাভির কণ্ঠেও শোনা যায় মেসির কথার প্রতিধ্বনি। তিনি বলেন,'আমি মনে করি আমরা খেলায় প্রাধান্য দেখিয়েছি। অনুভূতি ভাল। কেননা লক্ষ্য ছিল কোয়ার্টার ফাইনাল যেখানে আমরা এখন আছি। আমরা আমাদের জয় নিয়ে সন্তুষ্ঠ। আমাদের বিপক্ষও খেলেছে। তবে আমরা বল নিয়ন্ত্রনে রেখে নিজেদের খেলা খেলার চেস্টা করেছি। আমরা আমাদের ফর্মও পুণরুদ্ধার করেছি।'

বার্সেলোনা ও প্যারি সেন জার্মেই গত বুধবার রাতে অনুষ্ঠিত চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলর ফিরতি লেগে জয়ের সুবাদে শেষ আটে পৌছায়। এর আগের রাতে একই যোগ্যতা অর্জন করেছিল বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখ ও অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ।

স্পানিশ জায়ান্টরা শেষ ষোলর ফিরতি লেগে ম্যানচেস্টার সিটিকে ২-১ গোলে হারিয়ে এই কৃতিত্ব দেখায়। বুধবার রাতে নিজেদের মাঠ ন্যু ক্যাম্পে অনুষ্ঠিত খেলাটিতে কাতালানদের পক্ষে গোল দুটি করেন লিওনেল মেসি ও ডানি আলভেস। দুই লেগ মিলিয়ে দলটি ইংলিশ ক্লাব সিটির সাথে ৪-১ গোলের ব্যবধান গড়ে কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত করে। গত মাসে সিটির মাঠ ইত্তেহাদ স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত খেলাটিতেও এই দুই জনের ভূমিকায় ২-০ ব্যবধানে জিতেছিল স্পানিশ চ্যাম্পিয়নরা।

প্যারি সেন জার্মেই (পিএসজি) এই রাতে ফরাসি রাজধানীতে ২-১ ব্যবধানে হারায় বায়ার লেভারকুসেনকে। ফলে দুই লেগ মিলিয়ে ৬-১ ব্যবধান গড়ে কোয়ার্টার ফাইনালে উঠলো কাতারের অর্থায়নে চলা ক্লাবটি।

কোচ জেরার্ডো মার্টিনোর দল দুই গোলের অগ্রগামিতায় সুবিধাজনক অবস্থানে থেকে মাঠে নামলেও প্রথমার্ধে গোল শূণ্য থাকতে হয় তাদের। যদিও এ অর্ধে মেসি ফাউলের শিকার হলেও নিশ্চিত পেনাল্টি পায়নি স্বাগতিকরা। ৬৭ মিনিটে দলকে এগিয়ে দিয়ে চলতি মৌসমে নিজের ২৮ তম গোল আদায় করে নেন ইনজুরির কারণে মৌসুমের একটা বড় সময় খেলতে না পারা আর্জেন্টাইন অধিনায়ক মেসি।

ম্যানচেষ্টার সিটি অবশ্য নির্ধারিত সময়ের এক মিনিট আগে ভিনসেন্ট কম্পানির গোলে সমতায় ফেরালে খেলা নাটকীয় রুপ নেয়। কিন্তু ইনজুরি সময়ে প্রথম লেগের মতো জয়সূচক গোলটি করেন আলভেস। যদিও কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত করার জন্য স্পানিশ চ্যাম্পিয়নদের জন্য জয় পাওয়া বাধ্যতামুলক ছিল না। তবে গত শনিবার রিয়াল ভ্যালাদোলিদের কাছে লিগের খেলায় হারের কারণে কোচ মার্টিনোর জন্য জয়টি ছিল স্বস্তিকর। অপরদিকে সিটি কোচ ম্যানুয়েল পেলিগ্রিনি আগের খেলায় রেফারির তীব্র সমালোচনা করায় দুই ম্যাচের নিষেধাজ্ঞার কারণে গ্যালারিতে বসতে বাধ্য হন। তাই তার জন্য কোন কিছুই স্বস্তির ছিল না।

পিএসজির মাঠে লেভারকুসেন মাত্র ছয় মিনিটে সিডনি স্যামের গোলে এগিয়ে গেলেও ১৩ মিনিটে স্বাগতিকদের সমতায় ফেরান মারকুইনহস। ৫৭ মিনিটে ইজেকুয়েল লাভেজ্জি পিএসজির পক্ষে জয়সূচক গোলটি করেন। ফলে প্রথম লেগে ৪-০ গোলে পিছিয়ে থাকা লেভারকুসেন দুই লেগ মিলিয়ে ৬-১ ব্যবধানে হারের কারণে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে বিদায় নিলো।

Share this post

scroll to top
error: Content is protected !!