DMCA.com Protection Status
ADS

মুন্সিগঞ্জে হরতালঃ বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধ ৩

image_79686_0মুন্সিগঞ্জ: জেলার সিপাহীপাড়া এলাকায় হরতালে বিএনপির মিছিলে পুলিশ বাধা দিয়েছে। এ সময় বিএনপি ও পুলিশের সংঘর্ষ হয়।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ লাঠিচার্জ ও গুলি ছুড়লে ৩ জন গুলিবিদ্ধসহ ১৫জন আহত হয়েছেন।

সদর উপজেলায় কেন্দ্র দখল, এজেন্টদের মারপিট, ভোটারদের বাধা ও জালভোট দেয়ার প্রতিবাদে শনিবার সকাল ৯টার দিকে বিএনপির ডাকা সকাল-সন্ধ্যা চলাকালে এ ঘটনা ঘটে।

বৃহস্পতিবার সংবাদ সম্মেলন করে এ হরতালের ঘোষণা দেন বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী মোশারফ হোসেন পুস্তি।

গুলিবিদ্ধরা হলেন- ফারুক, মো. হোসেন পুস্তি ও মো. আবুল হোসেন।

হাতিমারা পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই মনির হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বাংলামেইলকে জানান, সদর উপজেলার হাতিমারা এলাকা থেকে হরতালের সমর্থনে বিএনপির নেতাকর্মীরা  একটি মিছিল বের করে। মিছিলটি সিপাহীপাড়া এলাকায় পৌঁছলে পুলিশ বাধা দেয়। এতে বিএনপি নেতাকর্মীরা পুলিশের ওপর চড়াও হয়। এ সময় শুরু হয় পুলিশ ও বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ।

পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে লাঠিচার্জ, রাবার বুলেট, টিয়ার শেল, ও গুলি ছুড়ে। এতে বিএনপির ৩ কর্মী গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছেন ১৫ জন। আহতদের মুন্সিগঞ্জ সদর জেলারেল হাসপাতালসহ ঢাকার বিভিন্ন হাসপালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনা এখন পুলিশের নিয়ন্ত্রণে বলে জানান এএসআই মনির।

উল্লেখ্য, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলায় কেন্দ্র দখল, এজেন্টদের মারপিট, ভোটারদের বাধা ও জালভোট দেয়ার প্রতিবাদে জেলা শনিবার সকাল-সন্ধ্যা হরতাল আহ্বান করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে  মুক্তারপুর বিএনপি কার্যালয়ের সামনে ডাকা সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী মোশারফ হোসেন পুস্তি নির্বাচন বয়কট করেন।

Share this post

scroll to top
error: Content is protected !!