DMCA.com Protection Status
ADS

বিএনপি এবার ক্ষমতায় গেলে আওয়ামী লীগের অবস্থা হবে রোহিঙ্গাদের মতোঃকামরুল ইসলাম।

ক্যাপ্টেন(অবঃ)মারুফ রাজুঃ  বিএনপি এবার ক্ষমতায় এলে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের অবস্থা নির্যাতনের ফলে বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর মতো হবে বলে সতর্ক করে দিয়েছেন অবৈধ হাসিনা সরকারের খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম।
বৃহস্পতিবার দুপুরে ঐতিহাসিক ৭ মার্চ ঢাকার জনসভা সফল করার লক্ষ্যে কামরাঙ্গীরচরের রসুলপুরে থানা আওয়ামী লীগ আয়োজিত প্রস্তুতি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের এই নেতা। এসময় কামরাঙ্গীরচর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. আবুল হোসেন সরকারের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাত, সাধারণ সম্পাদক মো. শাহে আলম মুরাদ।

 

কামরুল ইসলাম বলেন, ’বিএনপি যদি ক্ষমতায় আসে আরেকবার, আওয়ামী লীগের অবস্থা রোহিঙ্গাদের মতো হবে, এটা মনে রাখবেন। ২০০১ থেকে ২০০৬ পর্যন্ত তারা যা করেছে, আবার যদি তাদের রাষ্ট্রক্ষমতায় আসে, তাহলেও আমাদের এভাবে পরবাসী হতে হবে, রোহিঙ্গাদের মতো। বাংলাদেশের সংখ্যালঘু সম্প্রদায়, আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা, মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের মানুষরা, প্রগতিশীল মানুষ, প্রগতিশীল লেখক, প্রগতিশীল রাজনীতিবিদ যারা—তাদের তারা এ দেশে শান্তিতে বসবাস করতে দেবে না, বিএনপি যদি রাষ্ট্রক্ষমতায় আসে।’
খাদ্যমন্ত্রী আরো বলেন, ’খালেদা জিয়া নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে পারবেন কি পারবেন না, এটা আদালতের সিদ্ধান্তের বিষয়। খালেদা জিয়া কখন জামিনে মুক্ত হয়ে আসবেন, এটা আদালতের সিদ্ধান্তের বিষয়। অহেতুক কথাবার্তা বলে, মিথ্যা কথাবার্তা বলে জনগণকে বিভ্রান্ত করা থেকে বিরত থাকুন। বরং নির্বাচনের জন্য প্রস্তুতি গ্রহণ করুন।’

দুর্নীতিবাজদের প্রত্যাখ্যান এবং জঙ্গিবাদকে না বলতে নতুন প্রজন্মের প্রতি আহবান জানিয়েছেন খাদ্যমন্ত্রী এডভোকেট কামরুল ইসলাম।
তিনি বলেন, ’যে জাতি তার জন্মের ইতিহাস জানে না, সে জাতি বেশি দূর অগ্রসর হতে পারে না। তাই নতুন প্রজন্মের সামনে সঠিক ইতিহাস তুলে ধরতে হবে। তাদেরকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার মূল্যবোধ ধারন করতে হবে।’
খাদ্যমন্ত্রী মঙ্গলবার কেরাণীগঞ্জ গার্লস স্কুল এন্ড কলেজের বার্ষিক ক্রীড়া ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বক্তৃতা করছিলেন। খবর বাসসের।
তিনি বলেন, বিগত সরকারগুলো নতুন প্রজন্মকে সঠিক ইতিহাস জানতে দেয়নি। তারা ইতিহাস বিকৃত করে মিথ্যা ও মুক্তিযুদ্ধের খন্ডচিত্র দেশবাসীর কাছে তুলে ধরেছে। কিন্তু কোমলমতি শিক্ষার্থীরা যাতে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস জানতে পারে বর্তমান সরকার সেই চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।


কামরুল ইসলাম বলেন, এ দেশের মানুষ কোনো দিন আর মুক্তিযুদ্ধবিরোধী আগুন সন্ত্রাসীদের হাতে ক্ষমতা তুলে দিবে না। এ সরকারের উন্নয়নের সুফল দেশের মানুষ পেতে শুরু করেছে।


বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি এম এ হাসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন কেরাণীগঞ্জ গার্লস স্কুল এন্ড কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সাবেক এমপি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা মহসীন মন্টু, দাতা সদস্য মো. মোক্তার হোসেন, সদস্য মো. আমির হোসেন, প্রতিষ্ঠান প্রধান অনিতা সরকার, যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ইউসুফ আলী চৌধুরী সেলিম ও এডভোকেট এনামুল হক।

Share this post

scroll to top
error: Content is protected !!