DMCA.com Protection Status
ADS

বাংলাদেশে জঙ্গি হামলায় ইসরাইলি ষড়যন্ত্র রয়েছেঃ মাহবুব উল আলম হানিফ

gulshan1 copy

ক্যাপ্টেন(অবঃ)মারুফ রাজুঃ এবার বাংলাদেশে সাম্প্রতিক জঙ্গি হামলাগুলোতে ইসরাইলের সংশ্লিস্টতার অভিযোগ উঠলো।  বাংলাদেশে সরকারি উদ্যোগে ঢাকায় ইমামদের এক সমাবেশে আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতা এবং ইসলামিক ফাউন্ডেশনের প্রতিনিধিরা দাবি করেছেন, দেশে জঙ্গি হামলার পেছনে আছে ইসরাইলের ষড়যন্ত্র।

বিবিসি বাংলা অনলাইনে বৃহস্পতিবার এ রিপোর্ট প্রকাশ করে। এতে বলা হয়- ইমামদের এই সমাবেশ ডাকা হয়েছিল প্রতি শুক্রবার সব মসজিদে খুতবায় জঙ্গিবাদবিরোধী কথা তুলে ধরার বিষয়টি নিয়ে। ঢাকার বায়তুল মোকাররমের এই সমাবেশে দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে প্রায় হাজার পাঁচেক ইমাম ও খতিব যোগ দিয়েছিলেন।

বাংলাদেশে জঙ্গি হামলার পেছনে ইসরাইলের ষড়যন্ত্র আছে বলে মনে করেন ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের নেতা এবং ইসলামিক ফাউন্ডেশনের প্রতিনিধিরা।

বৃহস্পতিবার ঢাকায় ইমাম এবং ধর্মীয় ব্যক্তিত্বদের এক অনুষ্ঠানে তারা বলেছেন, তাদের ভাষায় ইসলামের নামে ইসরাইলের এই ষড়যন্ত্রের বিষয়টি ইমাম এবং খতিবরা যাতে সাধারণ মানুষকে বুঝিয়ে বলেন।

জঙ্গিবাদবিরোধী কর্মশালা হলেও অনুষ্ঠানের অধিকাংশ বক্তা ইসরাইলের কড়া সমালোচনা করেছেন।

ইসলামী ফউন্ডেশনের এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন মাহবুব-উল আলম হানিফ। এছাড়াও আওয়ামী লীগ-এর কেন্দ্রীয় পর্যায়ের একাধিক নেতা এবং ইসলামী ফাউন্ডেশনের প্রতিনিধিরা মসজিদের ইমাম এবং খতিবদের উদ্দেশে বক্তব্য রাখেন।

ইসলামী ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক শামীম মোহাম্মাদ আফজাল ইমামদের উদ্দেশে বলেন, কিছু গোষ্ঠী ইসলামের বিকৃত ব্যাখ্যা দিচ্ছে। এদের সম্পর্কে সজাগ থাকতে হবে। বাংলাদেশে বর্তমানে জঙ্গি তৎপরতার জন্য আওয়ামী লীগ নেতারা ইসরাইলকে দায়ী করেছেন।

আওয়ামী লীগের ধর্মবিষয়ক সম্পাদক শেখ আবদুল্লাহ বলেন জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট বা আইএস ইসরাইলের সৃষ্টি।

তিনি অভিযোগ করেন ইসলামের ‘দুর্নাম’ করানোর জন্য আইএস-এর মাধ্যমে ইসরাইল পৃথিবী জুড়ে এই ধরনের কাজ করাচ্ছে।

একই অবস্থানে আওয়ামী লীগের আরেকজন কেন্দ্রীয় নেতা আমিনুল ইসলামও অভিন্ন ভাষায় কথা বলেন।

মিস্টার ইসলাম প্রশ্ন তোলেন পৃথিবীর বিভিন্ন মুসলিম দেশে ইসলামী জঙ্গিবাদের নামে হামলা হলেও ইসরাইলে কিছু হচ্ছে না কেন?

তিনি মনে করেন এর মাধ্যমে প্রমাণিত হচ্ছে আইএস ইসরাইলের সৃষ্টি।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মাহবুব-উল আলম হানিফ দাবি করেন আমেরিকাভিত্তিক জঙ্গিবাদ নজরদারি ওয়েবসাইট সাইট ইন্টেলিজেন্স আইএস-এর মুখপাত্র হিসেবে কাজ করছে।

তিনি এটাও অভিযোগ করেন যে, সাইট ইন্টেলিজেন্স-এর সঙ্গে ইসরাইলি গোয়েন্দা সংস্থার যোগাযোগ রয়েছে।

আওয়ামী লীগের এই নেতা মনে করেন ইসরাইলি ষড়যন্ত্রের কারণে ইসলামকে নিয়ে আজ অনেকেই প্রশ্ন তুলছে এবং ইসলামকে অশান্তির ধর্ম প্রমাণের জন্যই আইএস-এর নামে এসব হামলা হয়ে থাকতে পারে।

মিস্টার হানিফ বিএনপিকে লক্ষ্য করে বলেন, দলটির একজন নেতা আসলাম চৌধুরীর ইসরাইলি একজন রাজনীতিকের সঙ্গে বৈঠক প্রমাণ করে তারা ইসরাইলের সঙ্গে হাত মিলিয়েছে।

এই অনুষ্ঠানে দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে আসা সাধারণ ইমাম এবং খতিবদের মতামত প্রকাশের কোনো সুযোগ ছিল না। অনুষ্ঠানের পরে বিবিসি বাংলার তরফ থেকে এ বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে তাদের মধ্যে বিভক্ত মতামত দেখা যায়।

একজন ইমাম বলেন, যেকোনো ঘটনা ঘটলেই ইসরাইলকে দায়ী করা একটা কথার কথা হয়ে গেছে। আমি মনে করি না ইসরাইল এসব ঘটনার সঙ্গে জড়িত।

তবে আরেকজন ইমাম মনে করেন আইএস-এর নামে যেসব কাজ করা হচ্ছে সেগুলোর পেছনে ইসরাইলি ‘ষড়যন্ত্র’ আছে। ইসলামিক ফাউন্ডেশন মনে করে বাংলাদেশে জঙ্গিবাদ মোকাবিলার জন্য নিরাপত্তা বাহিনীর পাশাপাশি মসজিদভিত্তিক কার্যক্রমকেও জোরদার করতে হবে, তবে ইসলামিক ফাউন্ডেশন যে কৌশলে এগুতে চাইছে সেটি নিয়ে ইমামদের মধ্যে যথেষ্ট মতভেদ রয়েছে বলেই মনে হলো।

Share this post

scroll to top
error: Content is protected !!